বৃহস্পতিবার , ২৪ জানুয়ারি ২০১৯ | বিকাল ৪:০৪

এইমাত্র পাওয়া:

৥ আমার বাংলা TV: বদির ৩ ভাই ‘সেফহোমে কক্সবাজার পুলিশ হেফাজতে ৥
৥ আমার বাংলা TV: ফ্লোরিডায় ব্যাংকে ঢুকে ৫ জনকে গুলি করে হত্যা ৥
৥ আমার বাংলা TV: ওরা গরিব বলেই পাশে নেই কেউ ৥
৥ আমার বাংলা TV: ডিএনসিসি নির্বাচনে বিএনপি এলে প্রার্থী তাবিথ আউয়াল ৥
৥ আমার বাংলা TV: উপজেলা নির্বাচনে একক প্রার্থী বাছাই: আওয়ামী লীগের চ্যালেঞ্জ ৥
৥ আমার বাংলা TV: হলি আর্টিজানে জঙ্গি হামলা মামলার সাক্ষ্য ২৯ জানুয়ারি ৥
৥ আমার বাংলা TV: শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনির বিএসএমএমইউ পরিদর্শন ৥
৥ আমার বাংলা TV: ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের পুলিশ পরিদর্শক পদে বদলি ৥
৥ আমার বাংলা TV: শেকৃবি বিএলআরআই সমঝোতা চুক্তি সই ৥
৥ আমার বাংলা TV : শ্রীপুরে ৪ দোকান পুড়ে ছাই ৥
৥ আমার বাংলা TV : কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া রুটে ফেরি চলাচল স্বাভাবিক ৥
৥ আমার বাংলা TV: মহেশখালীতে পুলিশের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ যুবক নিহত ৥
৥ আমার বাংলা TV: ঠাকুরগাঁওয়ে ট্রাকচাপায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত ৥
৥ আমার বাংলা TV: দুবাইয়ে কানাডা অভিবাসী লেখক জসিম মল্লিকের সঙ্গে সংহতির ৥
৥ আমার বাংলা TV: টাম্পের চিঠি, কিমের সন্তুষ্টি প্রকাশ ৥
৥ আমার বাংলা TV: ভেনিজুয়েলায় দুই দিনের সহিংস বিক্ষোভে নিহত ১৩ ৥
৥ আমার বাংলা TV: রংপুর মেডিকেলের মেডিসিন ক্লাবের ১৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন ৥
৥ আমার বাংলা TV: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ সহকারী হলেন ব্যারিস্টার ফরহাদ ৥
৥ আমার বাংলা TV: আফগান সেনাঘাঁটিতে তালেবান হামলা, নিহত শতাধিক ৥
৥ আমার বাংলা TV: সিরিয়ায় ইরানের লক্ষ্যবস্তুতে হামলার দাবি ইসরাইলের ৥
৥ আমার বাংলা TV: ৫ প্রতিষ্ঠানের বোতলজাত পানি ‘মানহীন ৥
৥ আমার বাংলা TV: পদ্মা সেতু প্রকল্পের সার্বিক অগ্রগতি ৬৩ ভাগ ৥

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াই চলবে।

আমার বাংলা TV: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দুর্নীতি বিরুদ্ধে তার সরকারের কঠোর অবস্থানের কথা পুনর্ব্যক্ত করে বলেছেন, দেশের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে এবং এর অর্জনসমূহ সমুন্নত রাখার জন্য সরকার তার দুর্নীতিবিরোধী লড়াই অব্যাহত রাখবে।প্রধানমন্ত্রী হিসেবে চতুর্থবারের মতো পুনর্নির্বাচিত হওয়ার পর রোববার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে (পিএমও) তার প্রথম কর্মদিবসে সিনিয়র কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে তিনি বলেন, ‘যদিও কোনো দেশের পক্ষেই শতভাগ দুর্নীতি নির্মূল করা সম্ভব নয়, তবে আমাদের সরকারের একটা দায়িত্ব হলো এই দুর্নীতি প্রতিরোধ করা যাতে এটি দেশের উন্নয়ন বাধাগ্রস্ত করতে না পারে এবং আমাদের সব সাফল্য ম্লান করে না দেয়।’প্রধানমন্ত্রী জোর দিয়ে বলেন, ‘সন্ত্রাসবাদ, দুর্নীতি ও মাদক নির্মূলের ক্ষেত্রে আমাদের যুদ্ধ অব্যাহত থাকবে।’

শেখ হাসিনা বলেন, টেন্ডার ছিনতাইয়ের ঘটনা দেশে বার বার ঘটেছে। কিন্তু আমরা দেশকে এই অবস্থা থেকে মুক্ত করতে পেরেছি। প্রযুক্তির বদৌলতে এই সাফল্য এসেছে এবং এটা ডিজিটাল বাংলাদেশের একটা ভাল ফল।তিনি বলেন, আমাদের যে লক্ষ্য ছিল… মাদকবিরোধী, সন্ত্রাসবিরোধী অভিযান চালাচ্ছিলাম। সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযানগুলো যেন অব্যাহত থাকে। এই দুর্নীতি যেন আমাদের উন্নয়নের পথে কোনো প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করতে না পারে বা আমাদের সব অর্জন যেন ধ্বংস করে না দেয়, সেজন্য দুর্নীতি রোধ করা এটাও আমাদের কর্তব্য। সেজন্য আমি বলব, এই অভিযানগুলো অব্যাহত রাখতে হবে। তার জন্য আমাদের এই অফিসটা, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের দায়িত্ব কিন্তু অনেক বেশি।

প্রতিটি মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে সমন্বয় করতেও নিজের কার্যালয়ের কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী।তিনি বলেন, ‘আমি অনুরোধ করব, বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ে আমরা যে প্রকল্পগুলো গ্রহণ করেছি, সেগুলো বাস্তবায়ন করা বা অন্যান্য ক্ষেত্রে দেশে শান্তি, নিরাপত্তা রক্ষা করা।’তিনি নিজেও আবার বিভিন্ন মন্ত্রণালয় পরিদর্শন শুরু করবেন বলেও জানান প্রধানমন্ত্রী।আজ সকালে ঢাকা সেনানিবাসে শিখা অনির্বাণে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে স্বাধীনতাযুদ্ধে আত্মোৎসর্গকারী সশস্ত্র বাহিনীর শহীদ সদস্যদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান শেখ হাসিনা। সশস্ত্র বাহিনী বিভাগে নিজের কার্যালয়ে প্রথম কর্মদিবসের প্রথম ভাগ কাটান প্রধানমন্ত্রী। পরে সেখান থেকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে আসেন তিনি।কার্যালয়ের কেবিনেট কক্ষে প্রধানমন্ত্রীকে ফুল দিয়ে স্বাগত জানান বিভিন্ন বিভাগের কর্মকর্তারা।

শেখ হাসিনা তার বক্তব্যে বলেন, ‘২১ বছর যারা ক্ষমতায় ছিল, আমরা ১০ বছরে যা উন্নতি করতে পারলাম, তারা কেন তা করতে পারেনি। এ প্রশ্নের উত্তর যখনই খুঁজতে যাই তখনই মনে হয়, আসলে যারা স্বাধীনতাই চায় নাই তারাতো আর দেশের উন্নতি করবে না। করতে চায় না। তাদের কাছে ক্ষমতা ছিল একটা লোভের মতো। একটা জাতিকে সামনের দিকে নিয়ে যেতে হলে তার একটা ভিশন থাকতে হবে, দিকনির্দেশনা থাকতে হবে, লক্ষ্য ও পরিকল্পনা থাকতে হবে। সেটা না থাকলে কোনো দেশ এগোতে পারবে না।বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে চলার ওপর গুরুত্ব দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের নিজের পায়ে দাঁড়াতে হবে।আমরা চেষ্টা করব, নিজের পায়ে দাঁড়াব, আমরা আত্মমর্যাদা নিয়ে চলব। অন্য দেশ যদি পারে আমরা পারব না কেন? আমাদের কিসের অভাব? কোনো অভাব নেই।শেখ হাসিনা বলেন, আমাদের শুধু উদ্যোগের অভাব, উদ্যমের অভাব, কাজ করার অভাব। তো সেই জায়গায়টায় আমরা যখনই এসেছি দিনরাত পরিশ্রম করেছি। সবাইতো বলছে, আপনারা এত খাটেন কেন? খাটাটা তো আমার নিজের জন্য নয়, খাটি দেশের জন্য, মানুষের জন্য।

দেশকে উন্নয়নের একটা পর্যায়ে নেয়ার কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, আজকে কিন্তু সেই জায়গায় আমরা এসে গেছি। এত অল্প সময়ের মধ্যে এই যে আমরা উন্নতিটা করে একটা উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে স্বীকৃতিটা পেয়েছি। উন্নয়নশীল দেশের স্বীকৃতি ধরে রেখে এগিয়ে যেতে হবে।আমরা আমাদের কাজের মধ্য দিয়ে অন্তত এটুকু বলতে পারি যে, আমরা জনগণের আস্থা, বিশ্বাস অর্জন করতে সক্ষম হয়েছি।অন্যান্য দেশের তুলনায় বাংলাদেশের গণতন্ত্রের বয়স ‘খুবই নতুন’ উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন, পৃথিবীর বহু দেশে ২০০-৩০০ বছর ধরে গণতন্ত্র চর্চা করে আসছে। তাদের ওখানেও কি গোলমাল হয় না? গোলমাল আছে, দ্বন্দ্ব আছে সবই আছে।আমাদের বিশাল জনগোষ্ঠী। তারপরও আমরা সেই মানুষগুলোকে নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছি। তাদের ভাগ্য পরিবর্তনে কাজ করছি।

এক হয়ে কাজ করা বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের জন্য খুবই জরুরি মন্তব্য করে তিনি বলেন, এদেশের উন্নতি হলে নিজের পরিবার, প্রতিবেশী সকলেরই উন্নতি। তাহলে আমাদের এই দ্বিধা-দ্বন্দ্ব থাকবে কেন? অহমিকাবোধ থাকবে কেন? সবাই মিলে কাজ করলে একটা দেশ যদি উঠে আসে সেটাই করতে হবে।আর কখনো যেন ওই স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি রাষ্ট্রক্ষমতায় আসতে না পারে সেই প্রত্যাশা রেখে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা বলেন, যারাই আসুক তারা হবে স্বাধীনতার সপক্ষের। স্বাধীনতার চিন্তা-চেতনায় বিশ্বাস করবে। স্বাধীনতার চিন্তা-চেতনাই বিশ্বাস করেই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে।প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব নজিবুর রহমান অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন। শুরুতেই প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের এসডিজিবিষয়ক মুখ্য সমন্বয়ক আবুল কালাম আজাদ একটি উপস্থাপনায় নির্বাচনী ইশতেহার ও এসডিজি বাস্তবায়নে কর্মসূচি তুলে ধরেন।

আমার বাংলা নিউজ /১৩ জানুয়ারি /২০১৯

 

About amarbangla

amarbanglanews

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *